আইনজীবী হলেন দৃষ্টিশক্তি হারানো রুমানা মঞ্জুর

0
352

আইনজীবী হলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের সাবেক শিক্ষক রুমানা মঞ্জুর। ২০১১ সালে তার স্বামীর আঘাতে অন্ধত্বের শিকার হওয়ার সময় তিনি ইউনিভার্সিটি অব ব্রিটিশ কলম্বিয়ার শিক্ষার্থী ছিলেন। ভয়াবহ পারিবারিক নির্যাতনে দৃষ্টিশক্তি হারানোর সাত বছর পর তিনি আইনজীবী হিসেবে নতুন পরিচয়ে আত্মপ্রকাশ করলেন।

সিটিভিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে রুমানা মঞ্জুর তার কঠিন সময়ের কথা স্মরণ করে জানান, তার সেই সিদ্ধান্তের কথা যেটা তাকে নতুন সব বাধার মুখোমুখি হতে সামনের দিকে যেতে উদ্বুদ্ধ করছিলো। অন্ধ হওয়ার পর ব্রেইলি পদ্ধতিতে আবারও পড়াশোনা শুরু করেন রুমানা। ২০১৩ সালে মাস্টার্স শেষ করার পর কানাডার ইউবিসির পিটার এ. অ্যালার্ড স্কুল অব ল’তে পড়াশোনা শুরু করেন তিনি। বর্তমানে তিনি কানাডায় বিচার বিভাগের আদিবাসী আইন বিভাগের জুনিয়র পরামর্শক হিসাবে কাজ শুরু করেছেন।

রুমানা মঞ্জুর বলেন, তিনি কোন অলস জীবন নয় একটা অর্থবহ জীবন কাটাতে চেয়েছিলেন। তাই অলসভাবে বসে থেকে যা হারিয়েছেন তা নিয়ে দুঃখ না করে কিছু একটা করতে চেয়েছেন। সেই লক্ষে নিজেকে একজন ভালো আইনজীবী হিসেবে গড়ে তুলতে চান তিনি। ২০১১ সালে কানাডা থেকে ছুটিতে দেশে এসে স্বামীর হাতে নির্যাতনের শিকার হয়ে দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছিলেন তিনি। ভয়াবহ সেই ঘটনার পর তিনি নানা প্লাটফরমে মানুষকে উদ্দীপিত ও সচেতন করতে বক্তব্য দেন।

তিনি বলেন, সচেতনতা সৃষ্টির মাধ্যমেই মানুষকে অন্যায়ের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানোর প্রেরণা জাগানো যায়। ঘুরে দাঁড়ানোর উৎসাহ সৃষ্টির মাধ্যমেই তিনি পারিবারিক সহিংসতার শিকার নারীদের সাহায্য করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here