চীনের বিনিয়োগের প্রভাব শেয়ারবাজারে

0
149

কৌশলগত বিনিয়োগকারী হিসেবে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) ২৫ শতাংশ শেয়ার চীনের দুই প্রতিষ্ঠান শেনঝেন ও সাংহাই স্টক এক্সচেঞ্জ কনসোর্টিয়ামকে (জোট) আনুষ্ঠাকিভাবে মঙ্গলবার বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে। এদিকে টানা চার কার্যদিবস পতনের পর বুধবার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সবকটি মূল্যসূচক বেড়েছে। সেই সঙ্গে বেড়েছে লেনদেনের পরিমাণ। বুধবার ডিএসইতে লেনদেন ৮০০ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে।

এদিকে বাজার সংশ্লিষ্টরা মনে করেন, চীনের বিনিয়েগের প্রভাব শেয়ারবাজারে পরেছে। সে কারনে শেয়ারবাজারে লেনদেন বেড়েছে। মঙ্গলবার শেয়ার হস্তান্তর দিন ডিএসইর চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. আবুল হাশেম বলেন, দেশের জন্য আজ গুরুত্বপুর্ণ দিন। ১৯৫৪ সালে ডিএসই চালু হওয়ার পর মঙ্গলবার শেয়ার হস্তান্তরের মাধ্যমে ডিএসইর অংশীদার হয়েছে বিশ্বের নামকরা শেনঝেন ও সাংহাই স্টক এক্সচেঞ্জ। এর মাধ্যমে ডিএসই আন্তর্জাতিকমানের স্টক এক্সচেঞ্জে রুপান্তর হয়েছে।

বুধবার ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ১৫৬ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে। বিপরীতে কমার তালিকায় স্থান করে নিয়েছে ১৩১টি প্রতিষ্ঠান। আর দাম অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৯টির। দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের তুলনায় ৯ পয়েন্ট বেড়ে ৫ হাজার ৫৬২ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

অপর দুটি মূল্যসূচকের মধ্যে ডিএসই-৩০ আগের দিনের তুলনায় ৫ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ৯৫৫ পয়েন্টে অবস্থান করছে। আর ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক ৮ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ২৭৯ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

এদিন বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম বাড়ায় হাজার কোটি টাকার বেশি বাজার মূলধন ফিরে পেয়েছে ডিএসই। দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইর বাজার মূলধন দাঁড়িয়েছে ৩ লাখ ৯৬ হাজার ২৯৮ কোটি টাকা। যা আগের কার্যদিবস শেষে ছিল ৩ লাখ ৯৫ হাজার ২৯৫ কোটি টাকা।

ডিএসইতে মোট ৮১১ কোটি ৭৫ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ৭১৬ কোটি ৯৮ লাখ টাকার শেয়ার। সে হিসাবে লেনদেন বেড়েছে ৯৪ কোটি ৭৭ লাখ টাকা। শুধু লেনদেনই নয় এদিন শেষ ১৩ কার্যদিবসের মধ্যে সর্বোচ্চ লেনদেন হয়েছে ডিএসইতে। টাকার অংকে ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে কেপিসিএলের শেয়ার।

বুধবার কোম্পানিটির ৬০ কোটি ১৪ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ৩০ কোটি ১৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন। আর তৃতীয় স্থানে থাকা পেনিনসুলা চিটাগাংয়ের শেয়ার লেনদেন হয়েছে ২৯ কোটি ৭০ লাখ টাকার।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের সার্বিক মূল্যসূচক সিএসসিএক্স ৪৭ পয়েন্ট কমে ১০ হাজার ৩৮৬ পয়েন্টে অবস্থান করছে। এদিন বাজারটিতে মোট ২৪৭টি প্রতিষ্ঠানের ৩৩ কোটি ৩২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে ১১১টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম বেড়েছে। বিপরীতে কমেছে ৯৫টির। আর দাম অপরিবর্তিত রয়েছে ৪১টির।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here