ট্রাম্পের অভিশংসন বিচার শুরু আগামী সপ্তাহে

0
44

ক্যাপিটল হিলে যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে নজিরবিহীন হামলা ও মৃত্যুর ঘটনায় দেশটির সদ্য সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের অভিশংসন বিচার শুরু হবে আগামী সপ্তাহে।  

শুক্রবার (২২ জানুয়ারি) ডেমোক্র্যাটদের বরাত দিয়ে এ খবর জানিয়েছে সিএনএন, বিবিসিসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম।

মার্কিন কংগ্রেস ভবন ক্যাপিটলে সমর্থকদের হামলার ঘটনায় ট্রাম্পের বিরুদ্ধে এই অভিশংসনের পদক্ষেপ নেওয়া হয়। ট্রাম্পের আত্মপক্ষ সমর্থনের প্রস্তুতি নিতে রিপাবলিকনরা বিচার শুরু করতে বিলম্ব করার জন্য ডেমোক্র্যাটদের প্রতি আহ্বান জানালেও খুব বেশি সময় তিনি পাচ্ছেন না।  

সোমবার (২৫ জানুয়ারি) হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভস ১০০ সদস্যের চেম্বারে বিচার প্রক্রিয়াটি উপস্থাপন করে সিনেটে অভিশংসন চার্জ দেবে।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের আইনসভা ক্যাপিটল ভবনে উগ্র ট্রাম্প সমর্থকদের হামলার পর বিদায়ী প্রেসিডেন্টকে নির্ধারিত সময়ের আগেই পদ থেকে সরাতে ডেমোক্র্যাটরা প্রতিনিধি পরিষদে অভিশংসন প্রস্তাব উত্থাপন করে। এতে দোষী সাব্যস্ত হলে যুক্তরাষ্ট্রের আইন অনুযায়ী ট্রাম্প আর কখনো নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন না।

গত ১৩ জানুয়ারি ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসন প্রস্তাবের পক্ষে-বিপক্ষে ভোটাভুটি হয়। ২৩২-১৯৭ ভোটে পাস হয় প্রস্তাবটি। ১০ জন রিপাবলিকানও এতে সমর্থন দেন। এর মধ্য দিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো কংগ্রেসের নিম্নকক্ষে অভিশংসিত হন ট্রাম্প।  

চূড়ান্ত অভিশংসনের জন্য প্রস্তাবটি সিনেটে পাঠানো এবং সেখানে বিচারপ্রক্রিয়ার পর দুই-তৃতীয়াংশ ভোটে পাস করাতে হবে এটি।  

বিচার পূর্ববর্তী আত্মপক্ষ সমর্থন ও যুক্তি-তর্ক উপস্থাপনের ক্ষেত্রে ১১ ফ্রেব্রুয়ারি পর্যন্ত সময় পাবেন ট্রাম্প।

মার্কিন সিনেটের শীর্ষ ডেমোক্র্যাট নেতা চাক শুমার বলেন, হাউস অভিশংসন আর্টিকেল সোমবার জমা দেবে। চলতি সপ্তাহে সিনেটের নিয়ন্ত্রণ নেওয়া ডেম্যোক্রাটরা যদি কোনো নিয়ম পরিবর্তন না করেন তাহলে ট্রাম্পের বিচার কার্যক্রম মঙ্গলবার (২৬ জানুয়ারি) থেকেই শুরু হবে।

তিনি আরো বলেন, সিনেট ট্রাম্পের অভিশংসন বিচার করবে। এটি পূর্ণাঙ্গ বিচার হবে। এটা হবে একটি নিরপেক্ষ বিচার।

প্রথমবার অভিশংসন বিচারে পার পেলেও এবার দোষী সাব্যস্ত হলে আর নির্বাচন করতে পারবেন না ট্রাম্প।

গত ২০ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেন জো বাইডেন। তার শপথ অনুষ্ঠানেও উপস্থিত ছিলেন না ৩ নভেম্বরের নির্বাচনে পরাজিত হওয়া ট্রাম্প।  

এর আগে ৬ জানুয়ারি ট্রাম্প সমর্থকরা ক্যাপিটল হিলে হামলা চালালে এতে ৫ জনের মৃত্যু হয়। এ ঘটনা ছিল যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে নজিরবিহীন। সূত্র: বাংলানিউজ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here