ঢাকায় কারা এমপি হচ্ছেন?

0
198

রাজধানী ঢাকার সংসদীয় আসন মোট ১৫টি। ১৫ আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন মোট ১৩২ জন প্রার্থী। তবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা সীমাবদ্ধ থাকবে মূলত আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন জোটপ্রার্থীর সঙ্গে বিএনপি নেতৃত্বাধীন জোটপ্রার্থীর। প্রথম পক্ষে নৌকা প্রতীক নিয়ে লড়ছেন ১৩ জন, দুই জন লাঙল প্রতীক নিয়ে। দ্বিতীয় পক্ষে ১৫ জনই ধানের শীষ প্রতীকে নির্বাচন করবেন। ধানের প্রতীকে একদিকে যেমন গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী ও মোস্তফা মহসিন মন্টু আছেন, অন্যদিকে তেমনি আছেন জামায়াতের ডা. শফিকুর রহমান। বিএনপির বাইরে জোটের একজন প্রার্থী আছেন ঢাকায় তিনি হলেন ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থ। আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী ছাড়া নৌকা প্রতীকে নির্বাচন করছেন ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন। লাঙলের দুই প্রার্থী হলেন আবু হোসেন বাবলা এবং কাজী ফিরোজ রশীদ।

নির্বাচন কমিশনে প্রার্থীদের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী কেমন প্রতিনিধি নির্বাচন কমিশন সেটা একটু দেখে নেয়া যেতে পারে। নৌকা/লাঙল বনাম ধানের শীষের মধ্যে লড়াই হলে ভোটাররা যাদের ভোট দেবেন তাদের নাম, শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং পেশা সম্পর্কিত তথ্য নিচে দেয়া হলো :

ঢাকা-৪ : আবু হোসেন বাবলা জাতীয় পার্টি, লাঙল, এইচএসসি পাস, পেশা – বাড়িওয়ালা। সালাহ উদ্দিন বিএনপি, ধানের শীষ, স্নাতক, পেশা – ব্যবসা।

ঢাকা-৫ : হাবিবুর রহমান, আওয়ামী লীগ, নৌকা, এসএসসি পাস, পেশার উল্লেখ নেই। নবী উল্লা, বিএনপি, ধানের শীষ, স্বশিক্ষিত, পেশা-ঠিকাদারি।

ঢাকা-৬ : কাজী ফিরোজ রশীদ, জাপা, লাঙল, এমএ পাস, পেশা-আইনজীবী।
সুব্রত চৌধুরী, গণফোরাম, ধানের শীষ, এলএলবি, আইনজীবী।

ঢাকা-৭ : হাজি মোহাম্মদ সেলিম, আওয়ামী লীগ, নৌকা , নবম শ্রেণি, ব্যবসা।
মোস্তফা মহসিন মন্টু, গণফোরাম, ধানের শীষ, স্বশিক্ষিত, ব্যবসা।

ঢাকা-৮ : রাশেদ খান মেনন, ওয়ার্কার্স পার্টি, নৌকা, স্নাতোকোত্তর, পেশা – রাজনীতি। মির্জা আব্বাস, বিএনপি, ধানের শীষ, স্নাতক, ব্যবসা।

ঢাকা-৯ : সাবের হোসেন চৌধুরী আওয়ামী লীগ, নৌকা, স্নাতোকোত্তর, ব্যবসা।
আফরোজা আব্বাস, বিএনপি, ধানের শীষ, স্নাতক, গৃহিণী।

ঢাকা-১০ : শেখ ফজলে নূর তাপস, আওয়ামী লীগ, নৌকা, বার-অ্যাট-ল, আইন পেশা। আব্দুল মান্নান, বিএনপি, ধানের শীষ, স্নাতোকোত্তর, ব্যবসা।

ঢাকা-১১ : এ কে এম রহমতুল্লাহ, আওয়ামী লীগ, নৌকা, এইচএসসি পাস, ব্যবসা।
শামীম আরা বেগম, বিএনপি, ধানের শীষ, বিএ, ব্যবসা।

ঢাকা-১২ : আসাদুজ্জামান খান কামাল, আওয়ামী লীগ, নৌকা,, বিএসসি, পেশা – রাজনীতি। সাইফুল আলম, বিএনপি, ধানের শীষ, এইচএসসি পাস, ব্যবসা।

ঢাকা-১৩ : সাদেক খান, আওয়ামী লীগ, নৌকা, স্বশিক্ষিত, ব্যবসা।
আবদুস সালাম, বিএনপি,ধানের শীষ, এলএলএম, ব্যবসা।

ঢাকা-১৪ : আসলামুল হক, আওয়ামী লীগ, নৌকা, ডিপ্লোমা, ব্যবসা।
সৈয়দ আবু বকর সিদ্দিক : বিএনপি ধানের শীষ, স্নাতক, ব্যবসা।

ঢাকা-১৫ : কামাল আহমেদ মজুমদার, আওয়ামী লীগ, নৌকা, বিএ, ব্যবসা।
ডা. শফিকুর রহমান, জামায়াত, ধানের শীষ, এমবিবিএস, ব্যবসা।

ঢাকা-১৬ : ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ, আওয়ামী লীগ, নৌকা এইচএসসি, ব্যবসা।
আহসান উল্লাহ, বিএনপি, ধানের শীষ, অষ্টম শ্রেণি, ব্যবসা।

ঢাকা-১৭ : আকবর হোসেন পাঠান ( ফারুক), আওয়ামী লীগ, নৌকা, শিক্ষাগত যোগ্যতার উল্লেখ নেই। পেশা -অভিনয়।
আন্দালিব রহমান পার্থ, ২০-দলীয় জোট, ধানের শীষ, বার-অ্যাট-ল, আইন পেশা।

ঢাকা -১৮ : সাহারা খাতুন, আওয়ামী লীগ, নৌকা, বিএ, আইনজীবী।
শহীদউদ্দিন মাহমুদ, বিএনপি, ধানের শীষ, স্নাতোকোত্তর, ব্যবসা।

এর মধ্যে ১৯ জন আগেও নির্বাচনে অংশ নিয়েছেন, কেউ কেউ নির্বাচিতও হয়েছেন, এক বা একাধিকবার। তবে ১১ জন এবার প্রথম বারের মতো নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। দুইজন প্রার্থী পেশা হিসেবে রাজনীতির কথা উল্লেখ করেছেন। বেশির ভাগের পেশা ব্যবসা। আওয়ামী লীগ প্রার্থীদের বিরুদ্ধে কোনো মামলা নেই।

বিএনপির ১৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা আছে। সর্বোচ্চ ২৬৭টি মামলা আছে সাইফুল আলমের বিরুদ্ধে। নবী উল্লার বিরুদ্ধে মামলার সংখ্যা ২২১টি। একটি মামলা আছে শামীম আরা বেগমের বিরুদ্ধে। আফরোজা আব্বাসের বিরুদ্ধেও ছয়টি মামলা আছে।
প্রার্থীরা সবাই মোটামুটি সম্পদশালী। গণফোরামের সুব্রত চৌধুরী তুলনামূলক কম সম্পদের অধিকারী।

এদের মধ্য থেকেই ১৫ জন নির্বাচিত হবেন। কেমন জনপ্রতিনিধি নগরবাসী পেতে যাচ্ছেন তার একটি ছবি এ থেকে আন্দাজ করা যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here