তিনদিন ধরে আযানের ধ্বনি শোনেননা নারায়ণগঞ্জের তল্লাবাসী

0
57

নারায়নগঞ্জের তল্লা এলাকার বায়তুস সালাত  মসজিদে মুয়াজ্জিনের সুমধুর কন্ঠে ‌‘আল্লাহু আকবার’ ধ্বনিতে ফজরের আযানের শব্দে ঘুম ভাঙ্গতো তল্লাবাসীর। গত তিন দিন ধরে আযান দেয়া আর নামাজ পড়া কোনটাই হচ্ছে না সেই মসজিদে।এলাকার মুসল্লিদের মধ্যে ভয় বা আতঙ্ক এখনো কেটে ওঠেনি। তারা মসজিদে দিকে তাকালেই ভয়ে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন।

গত শুক্রবার রাতে বিস্ফোরণের পর বায়তুস সালাত জামে মসজিদে সকাল থেকে রাত অবধি উৎসুক মানুষের সমাগম ঠিকই ঘটে কিন্তু মুসল্লির সমাগম নেই। বিস্ফোরণের কারণ উদঘাটনে মসজিদটি আলামত হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে। ক্ষণে ক্ষণে আসছে বিভিন্ন সংস্থার লোকজন।

স্থানীয়রা জানান, পশ্চিম তল্লার বায়তুস সালাত জামে মসজিদে প্রতি দিন ৫ ওয়াক্ত নামাজের আজানের সুমধুর ধ্বনি শুনে নামাজে আসতেন এলাকার মুসল্লিরা। কিন্তু চোখের পলকে পাল্টে গেলো দৃশ্যপট। একটি ঘটনা বদলে দিলো এলাকাবাসীর জীবন।

গতশুক্রবার রাতে মসজিদে এশার নামাজ চলাকালীন এক দুর্ঘটনায় দগ্ধ হয়ে মারা গেছেন ২৬ জন, হাসপাতালে মুমূর্ষ অবস্থায় রয়েছেন আরো ১২জন মুসল্লি। তদন্তের স্বার্থে মসজিদের সব কার্যক্রম বন্ধ।

মসজিদ কমিটির সভাপতি আব্দুর গফুর জানান, গত তিন দিন হলো আমাদের মসজিদে নামাজ তো দূরে থাক, আজানও দেয়া হচ্ছে না। তদন্ত কর্মকর্তারা বলেছে, সব বন্ধ। এলাকার মুসল্লিরাও যাচ্ছেন অন্য মসজিদে। তদন্ত না হলেই বা কী, মসজিদের যে অবস্থা হয়েছে নামাজ পড়ার অযোগ্য। সূত্র: আমাদের সময়.কম

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here