নারী-শিশুর আপৎকালীন সুরক্ষায় চালু হয়েছে মোবাইল অ্যাপ ‘জয়’

0
210

নানা সময়ে ঘটে যাওয়া নারীদের উত্যক্ত, ধর্ষণ কিংবা শিশু নির্যাতনের মতো ঘটনায় সঠিক তথ্য প্রমাণ না থাকার কারণে মামলা করা হয় না। যার জন্যে হরহামেশাই ঘটে যাচ্ছে অপরাধও। তবে, নারী ও শিশুর আপৎকালীন সময় সুরক্ষার জন্য সরকারের নতুন পদক্ষেপ মোবাইল অ্যাপ ‘জয়’। যে কোনো বিপদে অ্যাপটি চালু করলেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে ছবি ও শব্দ সংগ্রহ করে আইনশৃঙ্খলাবাহিনী ও নিকটজনদের কাছে বার্তা পাঠাবে অ্যাপটি। এতে শুধু উদ্ধার পাওয়াই সহজ হবে না, পরবর্তীতে মামলার জোরালো তথ্য-প্রমাণ হিসেবেও কাজ করবে।

চলতি পথে কোনো নারীদের উত্যক্ত, ধর্ষণ কিংবা শিশু নির্যাতন, ঘটলে স্মার্টফোনে অ্যাপটি চালু থাকা অবস্থায় জয় নামের এই অ্যাপটি নারী-শিশুর বিপদে কাজ করবে সুরক্ষাবর্ম হিসেবে। হরহামেশা ঘটে যাওয়া নানা অপরাধের উপযুক্ত তথ্য-প্রমাণের অভাবে, পার পেয়ে যান অপরাধীরা। তবে এবার একটি মোবাইল অ্যাপ পূরণ করবে সেই ঘাটতি।

সাধারণ মানুষ বলছেন, জয় নামের এই অ্যাপটি বেড় হবার পরে এখন নিজেকে নিরাপদ মনে করছি। চিন্তামুক্তভাবে ঘর থেকে বাহিরে বেড় হতে পারছি। তাবে এই অ্যাপটি সম্পর্কে প্রচারণা বাড়াতে হবে।

স্মার্টফোনে অ্যাপটি চালু থাকা অবস্থায় কোনো বিপদ এলে, আপনা থেকেই ঘটনাস্থলের অবস্থান, ছবি ও শব্দ পৌঁছে যাবে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের জরুরি সেবা নম্বর ১০৯ এর সার্ভারে। ঘটনাস্থলের কাছাকাছি পুলিশ কর্মকর্তার কাছেও পৌঁছবে তথ্য। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী বলছে, এসব তথ্য মামলা চালাতেও শক্ত ভূমিকা রাখবে।

পুলিশ সদর দপ্তরের ডিআইডি রৌশন আরা গেবম বলেছেন, অ্যাপটির মাধ্যমে যে অডিও, ভিডিও ও ছবি যে তথ্য পাওয়া যাবে, তার জন্য একটি মামলার তদন্ত করে খুব শক্ত আইনি ব্যবস্থা নেওয়া যাবে।

উদ্বোধনের পনের দিনে এক হাজারের বেশিবার ডাউনলোড হয়েছে অ্যাপসটি। আর অভিযোগ এসেছে প্রায় তিনশবার। মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রী বলছেন, প্রচার বাড়লে সম্পূর্ণ ফ্রি এই সেবা পেতে নারী ও শিশুরা আরো এগিয়ে আসবেন।

মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি বলেছেন, একটি মেয়ে ও ছেলে শিশুকে সমানভাবে সম্মান দেবে একটি পরিবার, তখন সমাজ থেকে যে অপরাধ হচ্ছে সেগুলো সাভাবিকভাবেই কমে যাবে।

বিপদের সময় কোনো কারণে অন না করা গেলে, ফোনের পাওয়ার বাটন চারবার চাপলেই, চালু হয়ে যাবে অ্যাপটি।
মহিলা ও শিশু বিষয়ক অধিদপ্তর বলছে, ভবিষ্যতে এই অ্যাপটি বাংলাদেশ পুলিশের জরুরী সেবা নম্বর ৯৯৯ এর সাথে সংযুক্ত হবার কথা রয়েছে, সেটি হলে শুধু নারী ও শিশুই নয়, যে কেউ তার বিপদের সময়ে এই অ্যাপটি থেকে সুবিধা পেতে পারবেন। সূত্র : চ্যানেল টোয়েন্টিফোর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here