ফের টিভি পর্দায় টেলিফিল্ম ‘অলৌকিক সংসার’

0
72

এবারের ঈদ আয়োজনে নিজের রচনায় নির্মাতা মাহমুদ দিদার নির্মাণ করেন টেলিফিল্ম ‘অলৌকিক সংসার’। এতে মুখ্য তিনটি চরিত্রে অভিনয়ে করেছেন মনোজ প্রামাণিক, মীম মানতাশা ও শহীদুজ্জামান সেলিম।

এর গল্পে দেখা যাবে, পাত্র আলমগীর তার এলাকার বণেদি পরিবারের সন্তান। রোকসানার তেমন কেউ নাই। মাঝির মেয়ে। তার বিরুদ্ধে অভিযোগের অন্ত নাই। দুরন্ত বালিকা, গাছে চড়ে, দোলনায় দোল খায়, বাপের নৌকা নিয়া মাঝ নদীতে গিয়ে নাটক করে ‘বাঁচাও, বাঁচাও’। এমনই একটি সাজানো ঘটনায় ঢাকা ফেরত আলমগীর রুকসানাকে বাঁচাতে যায়। রোকসানাকে বাঁচাতে গিয়ে উল্টো দেখে, আলমগীরকে বাঁচাতে হলো রোকসানাকে।  

গল্প শুরু হয় একটা ভয়াবহ দুর্ঘটনা দিয়ে। মাঝ পদ্মায় হুলুস্থুল বাদ্য-বাজনা, নৃত্যমুখর বরযাত্রী বোঝাই ট্রলার ডুবে গেলো। পাত্রীর নাম রুকসানা। পাত্র আলমগীর। দুজনারই সাং কচুয়া, চাঁদপুর। অধিকাংশ সাতরে কুলে উঠলেও ৩ জনকে মৃত পাওয়া যায়। পাত্রীকে খুঁজে পাওয়া যায় না। আলমগীরের বাবা জাদরেল টাইপের লোক। পিচাশ ঘরানার। সম্পত্তি অর্জনের নেশা তার।  

পার্শ্ববর্তী এলাকার জমিদার গোত্রীয় মহাজন আলেপ মিয়ার কন্যার সঙ্গে তার ছেলের বিয়ে পড়ানোর বাসনা ছিল। কিন্তু রোকসানার দুরন্ত মোহাবিষ্ট আলমগীরকে বিয়া করে আনতে গিয়েই এই দুর্ঘটনা ঘটলো। অনেকে সন্দেহ করে এর পেছনে আলমগীরের বাবার হাত আছে। একদল হিজড়া রোকসানাকে উদ্ধার করে তাদের ঢেরায় নিয়ে যায়। তারা হতবাক।  

রুকসানার গল্পটা তারা শুনে, তাদের কারো কারো হয়তো মায়া হয়। সঙ্গত কারণেই তাদের দল ভারি করার জন্যেই তারা রোকসানার মতো রূপবতীকে পুরুষের মতো সাজানো আরম্ভ করে, সঙ্গে নিয়ে যায়। টাকা তোলে। নাচ শেখায়, কথার ধরন শেখায়। রোকসানাও বুঝতে পারে এদের হাত থেকে বাঁচার উপায় নাই। তাদের কথা মতোই চলতে হবে….।  

ঈদ আয়োজনে টেলিফিল্মটি চ্যানেলে আইয়ে প্রচার হয়েছে। দর্শকের ভালোলাগা বিবেচনা করে বুধবার (১৯ আগস্ট) ৪টা ৩০ মিনিটে ফের এটি প্রচার হবে একই টিভি চ্যানেলের পর্দায়। বাংলানিউজ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here