বিয়ের পর বদলে যাবেন দীপিকা?

0
184

বলিউড তারকা দীপিকা পাড়ুকোন ও রণবীর সিংয়ের বিয়ে হবে ইতালিতে, কর্ণাটকি রীতিতে। গত সপ্তাহে নিজেদের বিয়ের দিন-তারিখ জানিয়ে আশীর্বাদ চেয়েছেন তাঁরা। আর দশটা ভারতীয় মেয়ের মতো বিয়ে নিয়ে ভীষণ উচ্ছ্বসিত এই অভিনেত্রী। তবে বিয়ের পর একটুও বদলাবেন না তিনি। থাকবেন ঠিক আগের মতোই কর্মতৎপর।

গত রোববার নিজেদের বিয়ের দিনক্ষণ প্রকাশ করেছেন দীপিকা-রণবীর। নভেম্বর মাসের ১৪ ও ১৫ তারিখ তাঁদের বিয়ে। নতুন বন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার কথা জানালেও তাঁরা জানাননি কোথায়, কীভাবে অনুষ্ঠিত হবে সেই বিয়ে। বিয়ে প্রসঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে দীপিকা বলেছিলেন, বিয়ে নিয়ে যেকোনো মেয়ের মতো তিনিও রোমাঞ্চিত। এখন বললেন, ‘আমি অবশ্যই রোমাঞ্চিত। যতটা রোমাঞ্চিত পরের ছবিতে নিজের গান করা নিয়ে। অন্য দশটা মেয়ের মতো বিয়েটা আমার জীবনের একটা বিশেষ ঘটনা। যখনই হোক, এটা হবে রোমাঞ্চকর। কিন্তু বিয়ের পর সবকিছু বদলে যাবে, তেমন নয়।’

‘ইন্ডিয়া টুডে’র সঙ্গে ওই সাক্ষাৎকারে দীপিকার বাবা প্রকাশ পাড়ুকোনও ছিলেন। বিয়ের আয়োজন আর আনুষ্ঠানিকতার পরিবর্তন নিয়ে কথা বলেন তিনি। বলেন, আজকাল বর-কনেই সব ঠিক করে, মা-বাবা কেবল সঙ্গে থাকে।

বিয়েটা কীভাবে হবে? এ প্রসঙ্গে দীপিকা তাঁর মা-বাবার সঙ্গে পরিকল্পনা ভাগাভাগি করেছেন। সেভাবেই সব আয়োজন করছেন তাঁরা। দীপিকা বলেন, ‘আমি দেখেছি, মা–বাবা এসব ভালোভাবেই করেছেন। তাঁরা যেভাবে ভালো মনে করবেন, সেভাবে আমার মঙ্গল হবে বলে আমি বিশ্বাস করি। আমার মনে হয়, তাঁদের সম্পর্কটা ভালো আছে। তাঁরা সংসারের পাশাপাশি পেশাগত জীবন চালিয়ে নিয়েছেন। তাঁদের সেই জীবনযাপন আমার আর আমার বোনের কাছে উদাহরণস্বরূপ। আমিও চাই সেভাবে জীবন কাটাতে।’

জানা গেছে, দীপিকা পাড়ুকোন ও রণবীর সিংয়ের বিয়ের অনুষ্ঠান হবে দুটি। চার দিনের এ অনুষ্ঠান শুরু হবে ১৩ নভেম্বর ইতালিতে একটি সংগীতসন্ধ্যার মধ্য দিয়ে। এরপর কর্ণাটকি রীতিতে ১৪ নভেম্বর বিয়ের মূল অনুষ্ঠান। পরদিন ১৫ নভেম্বর তাঁরা গাঁটছড়া বাঁধবেন। উত্তর ভারতীয় বিয়ের রীতি এমনই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here