রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে টালবাহানা করছে মিয়ানমার : প্রধানমন্ত্রী

0
193

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, মিয়ানমার নতুন নতুন অযুহাত দেখিয়ে রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে টালবাহানা করছে। মঙ্গলবার রয়টার্সের সাথে এক সাক্ষাতকারে শেখ হাসিনা বলেন, কোন অবস্থাতেই রোহিঙ্গাদের স্থায়ীভাবে বাংলাদেশে রাখা যাবে না।

তিনি আরও বলেন, আমার দেশের জনসংখ্যা ১৬০ মিলিয়ন। আমার পক্ষে অন্য আরেক বোঝা বহন করা সম্ভব নয়। আমি পারব না, আমার দেশও বহন করতে পারবে না। স্থায়ীভাবে রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসন করতে বাংলাদেশ নীতি পরিবর্তনে প্রস্তুত রয়েছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, শরণার্থী নিয়ে মিয়ানমারের সাথে আমরা সংঘাত চাই না। কিন্তু তিনি ইঙ্গিত করেন, মিয়ানমার নেত্রী অং সান সুচি ও সেনাবাহিনীর বিষয়ে তার ধৈর্য ফুরিয়ে গেছে এবং এক্ষেত্রে তারাই মূল শক্তি।

এরআগে শেখ হাসিনা একটি চুক্তিতে আবদ্ধ হতে মিয়ানমারের ওপর চাপ সৃষ্টি করার জন্য আন্তর্জাতিক সমাজের প্রতি আহ্বান জানান।

তিনি রয়টার্সকে বলেন, তারা (মিয়ানমার )সব কিছু করতে সম্মত হয় কিন্তু দুঃখজনক বিষয় হলো তারা কোনো কিছুই বাস্তবায়ন করে না, এটিই মূল সমস্যা। তিনি আরও বলেন, সব কিছু প্রস্তুত রয়েছে। কিন্তু প্রতিবারই তারা নতুন অযুহাত সৃষ্টি করে।

গত বছর নভেম্বরে দ্ইু মাসের মধ্যে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে মিয়ানমারের সাথে একটি চুক্তি করে বাংলাদেশ। কিন্তু পরবর্তীতে কার্যত এ কাজ শুরু হয়নি। এরপর থেকে প্রতিনিয়ত মিয়ানমার সীমান্ত অতিক্রম করে বাংলাদেশ এবং সীমান্তবর্তী এলাকা কক্সবাজারের শরণার্থী ক্যাম্পে আশ্রয় নিচ্ছে রোহিঙ্গারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here