সরকারি চাকরি হওয়া উচিত চুক্তিভিত্তিক : অর্থমন্ত্রী

0
194

র্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, ‘আমার মতে সরকারি চাকরি হওয়া উচিত কন্ট্রাক বেসিসে (চুক্তিভিত্তিক)। যে কোনো বয়সে যে কেউ চাকরি পাবে।’ বুধবার (২৯ আগস্ট) সচিবালয়ে সরকারি ক্রয়-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে তিনি সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ কথা বলেন।

সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানোর দাবির পরিপ্রেক্ষিতে সরকার চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানোর চিন্তা করছে। এ সময় অর্থমন্ত্রী এ মন্তব্য করলেন।

সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩২ বছর করার ব্যাপারে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় একটি প্রস্তাব তৈরি করেছে। এ বিষয়ে অর্থমন্ত্রীর মন্তব্য জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার কোনো আপত্তি নেই। আমার মতে সরকারি চাকরি হওয়া উচিত কন্ট্রাক বেসিসে (চুক্তিভিত্তিক)। যেকোনো বয়সে যোগ্যতা অনুযায়ী যে কেউ যেকোনো চাকরিতে আবেদন করতে পারবেন।

এ বিষয়ে আপনাদের কোনো পরিকল্পনা আছে কি না? এ প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, বয়স বাড়ানোর পরিকল্পনা আমার ছিল। আমি প্রস্তাবও দিয়েছিলাম। কিন্তু ওইটা বাস্তবায়ন হয়নি। আমার মনে হয়, নির্বাচনের আগে এসব ক্ষেত্রে কোনো পরিবর্তন আসবে না।

জানা গেছে, সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানোর বিষয়ে আলোচনা শুরু করেছে সরকার। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি সম্প্রতি সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩০ বছর থেকে বাড়িয়ে ৩৫ বছর করার সুপারিশ করেছে। এর ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত হতে পারে।

সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সুপারিশে অবসরের বয়সসীমা ৫৯ বছর থেকে বাড়িয়ে ৬৫ বছর করার কথা বলা হয়েছে। এ বিষয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, ‘স্থায়ী কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতেই প্রাথমিকভাবে আলোচনা হয়েছে।’

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানো নিয়ে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা আলোচনা শেষ করেছেন। এখন মন্ত্রণালয় প্রস্তাব তৈরির কাজে হাত দেবে। বর্তমান সরকারের মেয়াদ শেষ হওয়ার আগেই চাকরিতে প্রবেশের বয়স দুই বছর বাড়তে পারে বলেও আভাস পাওয়া গেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here