সাংবাদিক থেকে আইনজীবী, এরপর হলেন মন্ত্রী

0
174

সুপ্রিম কোর্টের সিনিয়র আইনজীবী শ ম রেজাউল করিম। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পিরোজপুর-১ আসন থেকে সাংসদ নির্বাচিত হয়ে গণপূর্ত ও গৃহায়ন মন্ত্রাণালয়ের দায়িত্ব পেয়েছেন। কর্মজীবনের শুরুতে তিনি ছিলেন সাংবাদিক, এরপর আইনজীবী আর ২০১৯ সালে এসে হলেন পূর্ণমন্ত্রী।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, সন্দ্বীপ পত্রিকার মাধ্যমে সাংবাদিকতা শুরু করেন তিনি। এরপর কাজ করেছেন দৈনিক ভোরের কাগজে। সাংবাদিকতায় সর্বশেষ কাজ করেছেন দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকার সুপ্রিম কোর্ট প্রতিনিধি হিসেবে।

সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী হওয়ার পরেও দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকার প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করেছেন বলে প্রিয়.কমকে জানিয়েছেন চ্যানেল নাইনের সিনিয়র সাংবাদিক আব্দুর রহমান। তিনি বলেন, ‘সুপ্রিম কোর্টে শ ম রেজাউল করিম আমাদের সঙ্গে সাংবাদিকতা করেছেন। তিনি দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকার আদালত প্রতিনিধি ছিলেন।’

শ ম রেজাউল করিমের ঘনিষ্ঠ হিসেব পরিচিত ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শেখ মো. জামাল প্রিয়.কমকে জানান, শ ম রেজাউল করিম এক সময় সন্দ্বীপ নামের একটি পত্রিকায় কাজ শুরু করেছেন। এরপর ভোরের কাগজ ও দৈনিক প্রথম আলোতে কাজ করেছেন। এরপর এই তিনি সাংবাদিকতা ছেড়ে পুরো সময় দিয়েছেন আইন পেশা এবং রাজনীতিতে। সাংবাদিকতাকে পেশা হিসেবে না নিলেও বিভিন্ন টেলিভিশন টকশো, পত্র-পত্রিকায় কলাম লেখাসহ সংবাদ মাধ্যমের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। এখনো আছেন।’

সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির নেতৃত্বও দিয়েছেন শ ম রেজাউল করিম। তিনি সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির ২০০৯-১০ সেশনের সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি আইনজীবীদের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের নির্বাচিত সদস্য। বার কাউন্সিলে ফাইন্যান্স কমিটির চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

পিরোজপুরের এক সম্ভ্রান্ত পরিবারে ১৯৬২ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারি জন্মগ্রহণ করেন শ ম রেজাউল করিম। তার পিতার নাম আব্দুল খালেক শেখ। মাতা মাজেদা বেগম। তিনি স্নাতক (সম্মান) পাশ। রেজাউল করিম ১৯৮০ সালে খুলনার দৌলতপুর সরকারি কলেজের ছাত্র সংসদের ভাইস প্রেসিডেন্ট (ভিপি), ১৯৮১ সালে খুলনা কৃষি কলেজের সাধারণ সম্পাদক (জিএস) নির্বাচিত হয়েছিলেন। ১৯৮৯ সালে নাজিরপুর থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত। পরে ১৯৯০ সাল থেকে অদ্যবধি জেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী সদস্য হিসেবে কাজ করেছেন। সর্বশেষ তিনি আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। আর একাদশ জাতীয় সংসদে পিরোজপুর-১ আসন থেকে প্রথমবারের মতো নির্বাচিত হয়ে পূর্ণ মন্ত্রী হিসেবে গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের  দায়িত্ব পেয়েছেন।

আগামীকাল (৭ জানুয়ারি) নতুন মন্ত্রিসভার ২৪ মন্ত্রী, ১৯ প্রতিমন্ত্রী ও ৩ জন উপমন্ত্রী শপথ নিতে যাচ্ছেন।৬ জানুয়ারি, রবিবার বিকেল সাড়ে চারটার দিকে সচিবালয়ে সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম আনুষ্ঠানিকভাবে তাদের তালিকা ঘোষণা করেন। তাদের মধ্যে পূর্ণ মন্ত্রী হিসেবে আইনজীবী শ ম রেজাউল করিমও রয়েছেন।  (প্রিয়.কম)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here