৩০০ মেগাওয়াট দিয়ে শুরু হচ্ছে আজ

0
174

বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতার আওতায় ভারত থেকে আরও বিদ্যুৎ আমদানি শুরু হচ্ছে। আজ রোববার দিবাগত রাত ১২টার পর ৩০০ মেগাওয়াট দিয়ে এই বিদ্যুৎ আমদানি শুরু হবে। পর্যায়ক্রমে চাহিদা, গ্রিড সমন্বয় (সিনক্রোনাইজেশন) প্রভৃতির ওপর নির্ভর করে পর্যায়ক্রমে ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি হবে।

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় নতুন স্থাপিত উচ্চ ক্ষমতার গ্রিড উপকেন্দ্রের (এইচভিডিসি) দ্বিতীয় ব্লকের মাধ্যমে এই বিদ্যুৎ আমদানি হবে। এর আগে ২০১৩ সালের ৫ অক্টোবর ভেড়ামারায় স্থাপিত এইচভিডিসির প্রথম ব্লকের মাধ্যমে ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি শুরু হয়। বর্তমানে ওই ৫০০ মেগাওয়াট ছাড়াও ত্রিপুরা থেকে ১৬০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি হচ্ছে। এই মোট ৬৬০ মেগাওয়াটের সঙ্গে নতুন ৫০০ মেগাওয়াট যুক্ত হচ্ছে।
আগামীকাল সোমবার বিকেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র দামোদর মোদি এক ভিডিও সম্মেলনের মাধ্যমে নতুন বিদ্যুৎ আমদানি-রপ্তানির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন। বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সূত্র জানায়, আসলে দুই দেশের মধ্যেকার আন্তসীমান্ত সঞ্চালন ব্যবস্থা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করার জন্য কয়েক দিন আগে থেকেই কিছু কিছু বিদ্যুৎ আনা-নেওয়া শুরু হয়েছে।
সরকারের পরিকল্পনা হচ্ছে ২০২১ সালের মধ্যে যে ২৪ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে সঞ্চালন করা হবে তার ১০ শতাংশ, অর্থাৎ ২ হাজার ৪০০ মেগাওয়াট আমদানি করা হবে। এর পুরোটাই আমদানি হবে ভারত থেকে। আর ২০৪০ সালের মধ্যে মোট বিদ্যুৎ আমদানি করা হবে ৯ হাজার মেগাওয়াট। এর মধ্যে নেপাল ও ভুটান থেকেও আমদানি করা বিদ্যুৎ থাকবে। এ ছাড়া মিয়ানমার আর চীন থেকেও আমদানির চেষ্টা করা হবে।
দীর্ঘ মেয়াদে দেশের বিদ্যুৎ চাহিদা মেটাতে বিদ্যুৎ উৎপাদনে জ্বালানি বহুমুখীকরণের পাশাপাশি আমদানিকে অপেক্ষাকৃত বেশি সুবিধাজনক পন্থা হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে। কারণ এই পন্থায় দেশের জায়গা, জ্বালানি ও এককালীন বিনিয়োগের দরকার হয় না।
কুষ্টিয়া থেকে প্রথম আলোর প্রতিনিধি তৌহিদী হাসান জানান, সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আজ রোববার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টায় কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার মোকারিমপুর ইউনিয়নের রামকৃষ্ণপুর গ্রামে অবস্থিত বাংলাদেশ-ভারত বিদ্যুৎ সঞ্চালন কেন্দ্রের গ্রিডে নতুন আমদানি করা বিদ্যুৎ সঞ্চালিত হবে।
আজ বিকেল সাড়ে তিনটায় ভেড়ামারা আন্তসংযোগ বিদ্যুৎ প্রকল্পের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মো. আলমগীর হোসেন মুঠোফোনে প্রথম আলোকে বলেন, সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। রাত সাড়ে ১২টায় স্টেশনের দ্বিতীয় ব্লকের মাধ্যমে বিদ্যুৎ আসবে। কাল সোমবার বিকেল ৪টা ৪৫ মিনিটে দুই দেশের প্রধানমন্ত্রী এর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন।
কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক আসলাম হোসেনও বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি প্রথম আলোকে বলেন, সোমবার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের পর ভেড়ামারা কেন্দ্রে এক সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে। সেখানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভিডিও কনফারেন্সে বক্তব্য দেবেন। সুধী সমাবেশে মন্ত্রী, সাংসদ ও বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দসহ প্রায় ৪০০ জন আমন্ত্রিত অতিথি উপস্থিত থাকবেন।

– ্প্রথম আলো

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here