ওয়াইন খেয়ে এ কী বিপদ!

0
312

গেল জুলাইয়ে নিজের চার বছরের মেয়েকে নিয়ে লন্ডন থেকে এমিরেটসের একটি উড়োজাহাজে দুবাই যান এলি হলম্যান নামে ৪৪ বছর বয়সী এক নারী। এই উড়োজাহাজে তিনি এক গ্লাস ওয়াইন পান করেছিলেন। আর তাতেই ঘটেছে বিপত্তি। দুবাই বিমানবন্দরে নামার পর গ্রেফতার হয়ে মেয়ে বিবিকে নিয়ে তাকে তিনদিন জেলে থাকতে হয়েছে। শুধু তাই নয়, দেশে ফেরার আগে ব্রিটিশ এই নারীকে আরব আমিরাতে গৃহবন্দি করে রাখা হয় এক মাসের মতো। তিন সন্তানের এই মা অবশেষে ইংল্যান্ডে ফিরতে পারলেও বিপদ তার পিছু ছাড়েনি। এখন হুমকি আসছে বোমায় তার বাড়ি উড়ে যাবে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাকে উদ্দেশ্য করে কুরুচিপূর্ণ নানা কথা বলা হচ্ছে। একজন লিখেছেন, আমি আশা করি তোমার বাচ্চারা যেন মরে যাই। আরেকজন লিখেছেন, তোমার সারাজীবনের জন্য জেলে থাকা উচিৎ। একজন তো লিখেছেন, আমি চাই, কোনো অপরাধী তোমাকে ধর্ষণ করুক, আর তা থেকে তোমার একটা বিশ্রি দেখতে বাচ্চা হোক। হলম্যান বলছেন, তার বিশ্বাস দুবাই থেকে তার বিরুদ্ধে বাজে একটা প্রচারণা চালানো হচ্ছে। বিবিসি রেডিও কেন্টকে তিনি বলেছেন, একজন যখন আমাকে ফোন করে বললো আমার বাসার বাগানে একটা বোমা আছে, প্রথম আমি যে চিন্তায় পড়লাম তা হলো, সে জানলো কিভাবে আমার বাসায় একটা বাগান আছে। তিনি বলেন, আমার জীবনটাই দুর্বিসহ হয়ে উঠেছে। সামাজিক যোগাযোগে মাধ্যমে আমার সঙ্গে যাদের ছবি আছে তারা সেই সব ছবি মুছে ফেলতে বলছে। সুইডেন ও ইরান দুই দেশের নাগরিকত্বই রয়েছে হলম্যানের। ছুটি কাটাতে জুলাইয়ে পাঁচ দিনের সফরে আমিরাত যাওয়ার পর থেকে তার এসব বিপত্তি শুরু। ইরানি পাসপোর্টে সিঙ্গেল এন্ট্রি ভিসাতে দুবাই ঢুকেছিলেন তিনি, সেটির আবার মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে গিয়েছিল এরপর বিমানে ওয়াইন পানের বিষয়টি জানা্র পর ইমিগ্রেশন পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। উৎসঃ jagonews24

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here