গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হলেই বিপদ বাংলাদেশের

0
224

বারের এশিয়া কাপের সূচি ঘোষণার পর থেকেই সমালোচনা হচ্ছে। এমনিতেই একদিনের ম্যাচের ধকল। তার ওপর টানা দুই দিন ম্যাচ। প্রথমে নজরে এসেছিল ভারত-পাকিস্তানের দিনক্ষণ দেখে। কিন্তু বাংলাদেশ বা আফগানিস্তানের কথা ভাবেনি কেউই! কারণ এশিয়া কাপের ‘বি’ গ্রুপের সমীকরণ দাঁড়িয়ে আজব এক মোড়ে। আগামীকাল বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ-আফগানিস্তান ম্যাচের জয়ী দলের অপেক্ষায় বিপদ। জিতলেই পরদিন ম্যাচ খেলতে দুবাই থেকে ছুটতে হবে আবুধাবিতে। শুধু তাই নয়, একদিন বিরতির পর আবার দুবাই থেকে খেলতে যেতে হবে আবুধাবি। মানে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হলেই বিপদ!

এবারের এশিয়া কাপের খেলা দুই শহরে হলেও দলগুলো থাকছে কেবল দুবাইয়ে। আবুধাবির ম্যাচ দুবাইয়ের হোটেল থেকে বাসে গিয়ে ম্যাচ খেলে আবার ফিরছে রাতে। এখন পর্যন্ত কোন সমস্যা দেখা না দিলেও কিছু বিপদ যেন অপেক্ষা করছে। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ-আফগানিস্তান ম্যাচে জয়ী দল হবে এই গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন। এমনিতেই এই দুই দলের অপেক্ষায় কঠিন চ্যালেঞ্জ। বৃহস্পতিবার গ্রুপ পর্বের ম্যাচের পর দুটি দলেরই শুক্রবার ও রোববার সুপার ফোরের দুটি ম্যাচ। মানে তাপদাহে চারদিনের মধ্যে খেলতে হবে তিনটি ম্যাচ! তাও ওয়ানডে ক্রিকেট!

চ্যাম্পিয়ন দলের বিপদ এখানেই শেষ নয়। রোববার সুপার ফোরের দ্বিতীয় ম্যাচের পর শেষ ম্যাচ খেলতে হবে তাদের মঙ্গলবারই। অথচ এই গ্রুপের রানার্সআপ দল পাবে বাড়তি আরেকটি দিন বিশ্রাম। তাদের শেষ ম্যাচ বুধবার।

তবে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন দলের বিপদ আরও বেশি। গ্রুপ পর্বের এই দুই ম্যাচই খেলতে হবে তাদের আবুধাবিতে গিয়ে! বিস্ময়কর ভাবে গ্রুপ রানার্সআপ দলের ওপর চাপ কম। সড়কপথে টানা ভ্রমণের ঝক্কি পোহাতে হবে না তাদের, ম্যাচ দুটি দুবাইয়েই।

সূচির এই জটিলতা ভাবাচ্ছে বাংলাদেশ কোচ স্টিভ রোডসকে। চ্যালেঞ্জটা কঠিন বলে সেভাবেই প্রস্তুতি নিতে চান কোচ। এসব নিয়ে পরিকল্পনা করে তিনি বলেন, ‘আমাদেরকে ব্যাপারটা নিয়ে ভাবতে হবে। আসলেই আমাদের জন্য সূচি ঠাসা। এই কঠিন কন্ডিশনে অল্প সময়ের মধ্যে অনেক ক্রিকেট খেলতে হবে আমাদের। অনেক ভ্রমণও করতে হতে পারে। তবে আমরা জয়ের জন্যই মাঠে নামব। আর আমদের মাথায় কেবল জয়ই ঘুরছে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here